Categories
সারাদেশ

১৫ দিন পর ফিরেছে মিয়ানমারে আটক ৯ জেলে

মিয়ানমার বিজিপির হাতে আটকের ১৫ দিন পর দেশে ফিরেছে ৯ বাংলাদেশি জেলে। ২৫ নভেম্বর বুধবার দুপুর সোয়া ২টার দিকে টেকনাফের ট্রানজিট জেটিতে আনা হয় তাদের।

এর আগে বেলা ১১টার দিকে মিয়ানমারের মংডু শহরের এন্ট্রি অ্যান্ড এক্সিট পয়েন্টে দুই দেশের সীমন্তরক্ষী বাহিনীর মধ্যে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এতে বাংলাদেশের পক্ষে নেতৃত্ব দেন ২ বিজিবি টেকনাফ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মো. ফয়সল হাসান খান। আর মিয়ানমারের পক্ষে ৪ বর্ডার গার্ড পুলিশ ব্রাঞ্চের অধিনায়ক পুলিশ লে. কর্নেল জাউ লিন অং।

এর আগে জেলেদের ফেরত চেয়ে বিজিবি মিয়ানমার কৃতপক্ষকে চিঠি দিয়েছিল।

পতাকা বৈঠকে অংশ নেয়া প্রতিনিধি টিমের সদস্য টেকনাফ মডেল থানার ওসি মো. হাফিজুর রহমান বলেন, ফিরিয়ে আনা জেলেদের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইন শেষে পরিবারের নিকট হস্তান্তর করা হবে।

ফিরে আসা জেলে মো. ইলিয়াছ জানান, গত ১০ নভেম্বর সকালে বঙ্গোপসাগরের মোহনায় টেকনাফের শাহপরীর দ্বীপের গুলা পাড়ার বাসিন্দা মোহাম্মদ আমিনের মালিকানাধীন নৌকায় কালা মাঝির নেতৃত্বে তারা সাগরে মাছ শিকারে যান। সাগরে তাদের ট্রলারের ইঞ্জিন বিকল হয়ে যায়। নৌকাটি ভাসতে ভাসতে মিয়ানমারের জলসীমায় প্রবেশ করলে বিজিপি এসে তাদের ধরে নিয়ে যায়।

সাবরাং ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য নুরল আমিন বলেন, সাগরে মাছ শিকারে যাওয়া নয়জন জেলেকে মিয়ানমার থেকে ১৫ দিন পর বিজিবির চেষ্টায় ফিরিয়ে আনা হয়েছে। এতে পরিবারের সদস্যরা সরকারের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছে।

লে. ফয়সল হাসান খান মিয়ানমার থেকে ফিরে এসে বলেন, পতাকা বৈঠকে উভয় পক্ষ নাফ নদীতে যৌথ টহল পুনরায় শুরু করতে ঐক্যমত হয়েছে। ১৯৮০ সালে বাংলাদেশ- মিয়ানমারের চুক্তি অনুযায়ী সীমান্তের সমস্যা আলাপ-আলোচনার ভিত্তিতে সমাধান করার কথা পুনর্ব্যক্ত হয় বৈঠকে।

মিয়ানমার থেকে ফিরে আসা জেলেরা হলেন, কক্সবাজার জেলার টেকনাফ উপজেলার সাবরাং ইউনিয়নের শাহপরীর দ্বীপের মো. নুরুল আলম (৪৮ ), ইসমাইল ওরফে হোসেন (১৯), মো. ইলিয়াছ (২১), মো. ইউনুছ (১৬), মো. আলম ওরফে কালু (১১), সাইফুল (১৭), সলিম উল্লাহ, (২৫) নূর কামাল (১৩) ও মো. লালু মিয়া (২৩)।

ভয়েস টিভি/এসএফ

Categories
সারাদেশ

সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের প্রত্যাহার দাবি

বিভিন্ন অনিয়ম দুর্নীতির অভিযোগ এনে সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন করেছে জেলা আইনজীবী সমিতি। ২৫ নভেম্বর বুধবার বেলা ১১টায় জেলা আইনজীবী সমিতির কার্যালয়ের সামনে তার কর্মসূচি পালন করে।

এতে বক্তব্য দেন, জেলা আইনজীবীদের সভাপতি অ্যাড. আফতাব উদ্দিন, সিনিয়র আইনজীবী অ্যাড. রইস উদ্দিন আহমদ, জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি অ্যাড. হুমায়ূন মঞ্জুর চৌধুরী, মুক্তিযোদ্ধা অ্যাড. বজলুল মজিদ চৌধুরী খসরু প্রমুখ।

এ সময় বক্তারা বলেন, জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের নবনির্মিত ভবনের প্রবেশ পথ বন্ধ করতে আদালতের আইন অমান্য করে জেলা প্রশাসক আব্দুল আহাদ অবৈধভাবে স্থাপনা তৈরি করছেন।

আরও পড়ুন : চিনিকল-পাটকল বন্ধের প্রতিবাদে বিক্ষোভ

এছাড়া সরকারের বিভিন্ন দফতরে পাঠানো চিঠিতে জেলা প্রশাসক আইনজীবীদের বিরুদ্ধে কুৎসা রটিয়েছেন। কুৎসা রটনাকারী এই জেলা প্রশাসককে প্রত্যাহার না করলে কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারি দেন বক্তারা।

ভয়েস টিভি/এমএইচ

Categories
সারাদেশ

উলিপুরে ফেনসিডিলসহ নারী মাদক ব্যবসায়ী আটক

কুড়িগ্রামের উলিপুরে ১১ বোতল ফেনসিডিলসহ তাহসিনা বেগম (৩৭) নামের এক নারী মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে পুলিশ।

২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার রাতে উলিপুর পৌরসভার রামদাস ধনিরাম গ্রাম থেকে তাকে আটক করা হয়।

আটক নারী উলিপুর পৌরসভার রামদাস ধনিরাম গ্রামের আব্দুল হাকিমের স্ত্রী।

জানা গেছে, মঙ্গলবার রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসআই রাসেল মাহমুদ এর নেতৃত্বে উলিপুর পৌরসভার রামদাস ধনিরাম গ্রামে তাহসিনা বেগমকে তার ননদের পরিত্যক্ত বাড়ি থেকে ১১ বোতল ফেনসিডিলসহ তাকে আটক করে পুলিশ।এসময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে দুই সহযোগী মাদক ব্যবসায়ী পালিয়ে যায়।

এ বিষয়ে উলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ ইমতিয়াজ কবির জানান, আটক নারী ব্যবসায়ীকে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দিয়ে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ভয়েসটিভি/এএস

Categories
সারাদেশ

বুড়িমারীতে পুড়িয়ে হত্যা : আরও দুইজন রিমান্ডে

লালমনিরহাটের বুড়িমারীতে জুয়েল হত্যা ও মরদেহ পোড়ানো মামলায় আরও দুই জনের তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

২৫ নভেম্বর বুধবার দুপুরে সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট বেগম ফেরদৌসী বেগম এ রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

রিমান্ডপ্রাপ্তরা হলেন, লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী ইউনিয়নের উফারমারা সোনারভিটা এলাকার আবুল হোসেনের ছেলে জিএম মানিক (৪৫) ও বামনদল গ্রামের পরমদ্দিনের ছেলে আবু কালাম ওরফে গামছা কামাল (২৯)।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের পরিদর্শক মাহমুদুন্নবী বলেন, বহুল আলোচিত জুয়েল হত্যায় দায়ের করা হত্যা, পুলিশের উপর হামলা ও ইউপি ভবনে হামলার মামলায় অজ্ঞাত নামীয় আসামি জিএম মানিক ও আবুল কালামকে আটক করা হয়। তদন্তে ওই ঘটনায় তাদের সম্পৃক্ততা পওয়ায় তিন মামলায় তাদেরকে গ্রেফতার দেখিয়ে হত্যা মামলায় ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ৩দিন করে রিমান্ড আবেদন করা হয়। বুধবার বিজ্ঞ আদালত শুনানি শেষে তাদের দুইজনেরই ৩ দিন করে রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেন। এ নিয়ে বহুল আলোচিত এ মামলায় বিভিন্ন মেয়াদে আদালত ১৫ জনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

গত ২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার রাতে বুড়িমারী ইউনিয়নের উফারমারা নাটারবাড়ি গ্রামের ফজলুল হকের ছেলে ফরিদুল ইসলামকে (৩৭) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার বিকেলে তাকেও আদালতে হাজির করে হত্যা মামলায় ৩ দিনের রিমান্ড চেয়ে আবেদন করা হবে। এ নিয়ে আলোচিত এ মামলায় এখন পর্যন্ত ৩৯ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এর মধ্যে মূলহোতা বুড়িমারী ইউনিয়ন শ্রমিক লীগের সভাপতি আবুল হোসেন ওরফে হোসেন ডেকোরেটর এবং মসজিদের খাদেম জোবেদ আলীসহ চারজন স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন বলেও নিশ্চিত করেন জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ওমর ফারুক।

এর আগে ২৯ অক্টোবর পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী বাজার কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে হামলা চালিয়ে জুয়েলকে পিটিয়ে হত্যা করে। পরে তার মরদেহ মহাসড়কে নিয়ে এসে আগুনে পুড়িয়ে দেয়।

ভয়েসটিভি/এএস

Categories
সারাদেশ

চাকরি দেওয়ার নামে প্রতারণা, চক্রের ৪ সদস্য গ্রেফতার

অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে বিজ্ঞাপন প্রচারের মাধ্যমে চাকুরী দেওয়ার নামে প্রতারণার অভিযোগে প্রতারক চক্রের ৪ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

২৫ নভেম্বর বুধবার সকালে সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিপিসি-২, র‌্যাব-৪ এর কোম্পানি কমান্ডার এএইচএম আদনান তফাদার। এর আগে ২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার রাতে সাভারের ডগরমোড়া এলাকার মমতাজ ভিলায় অভিযান চালিয়ে তাদেরকে আটক করা হয়।

গ্রেফতাররা হলেন- বরগুনা জেলা সদরের পিটিআই সড়কের রাজু আহমেদ জাফরের মেয়ে নুসরাত জাহান সিনথিয়া (২১), ঝিনাইদহ জেলা সদরের মাগুড়াপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল মোতালেব শাহের ছেলে আমিরুল ইসলাম (৪০), জামালপুর জেলার সরিষাবাড়ি থানার ৪ নম্বর ওয়ার্ডের মৃত সাইদুর রহমানের ছেলে ফাহিম রহমান (২২) ও জামালপুর জেলার দেওয়ানগঞ্জ থানার সানন্দাবাড়ি গ্রামের আজমেস আলীর ছেলে দুলাল মিয়া (২৮)।

র‌্যাবের কাছ থেকে জানানো হয়, সাভারের ওই এলাকায় মমতাজ ভিলা নামের একটি বাড়ির ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়ে আল হামি প্রাইভেট কোম্পানীর ব্যানারে সিকিরিউটি গার্ড হিসাবে চাকরি দেওয়ার নামে মোটা অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নিতো একটি চক্র। দীর্ঘদিন ধরে এসংক্রান্ত লোভনীয় বিজ্ঞাপন প্রচারের মাধ্যমে সাধারণ মানুষের অসহায়ত্বের সুযোগ নিতো এই চক্রটি।

প্রতারিত হয়ে ভুক্তভোগীরা অভিযোগ দিলে ওই কোম্পানিতে অভিযান চালায় র‌্যাব। এসময় উদ্ধার করা হয় একটি ল্যাপটপ, আল-হামী প্রাইভেট কোম্পানি লিমিটেডের নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ফরম ৪টি, এএইচ সিকিউরিটি লিমিটেডের ভর্তি ফরম ৪০টি, আল-হামী প্রাইভেট কোম্পানি লিমিটেডের চাকরির আবেদন ও ভর্তি ফরম ১০টি, যোগদানপত্র ৭টি, আবেদন পত্র ৩টি, অঙ্গীকারনামা ৭টি, মোবাইলফোন, দ্যা কোম্পানিজ অ্যাক্ট ১৯৯৪-০১ সেট একটি, চাকরি প্রত্যশিতদের জীবন বৃত্তান্ত ফরম ৪টি, রেজিস্ট্রার খাতা ৭টি, রিসিপশন স্টিকার ১টি, আল-হামী প্রাইভেট কোম্পানি লিমিটেডের স্টিকার ১টি, মানি রিসিভ বই ২টি, মোবাইল ফোন ফোন ৬টি, একটি লাল রংয়ের টিয়াগো প্রাইভেটকার, একটি সিলভার রংয়ের হিরো হোন্ডা। এসময় গ্রেফতার করা হয় চার প্রতারককে।

সিপিসি-২, র‌্যাব-৪ এর উপ-পরিচালক কোম্পানি কমান্ডার এএইচএম আদনান বলেন, গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করে সাভার থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে। কোম্পানিটির বিরুদ্ধে চাকরি প্রত্যাশীদের কাছ থেকে ৫০ লাখ টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ রয়েছে। এধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও জানান এই কর্মকর্তা।

ভয়েসটিভি/এএস

Categories
সারাদেশ

সাতক্ষীরায় স্ত্রী হত্যার অভিযোগে স্বামীকে পুলিশে সোপর্দ

পরকীয়ার জেরে সাতক্ষীরা সদরের সদরের রাজনগর গ্রামে সাত মাসের অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী পারভীন আক্তারকে শ্বাসরোধ করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। ২৫ নভেম্বর বুধবার সকালে ক্ষুব্ধ গ্রামবাসী স্বামী আব্দুল খালেককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে।

গৃহবধু পারভীন আক্তার (২৪) রাজনগর গ্রামের আব্দুর রহিমের মেয়ে এবং স্বামী আব্দুল খালেক পার্শবর্তী হাজিপুর গ্রামের মোজাম্মেল হকের ছেলে।

নিহতের ভাই ইটভাটা শ্রমিক তরিকুল ইসলাম জানান, পারভীন আক্তারের সঙ্গে ভাটা শ্রমিক আব্দুল খালেকের আট বছর আগে বিয়ে হয়। তাদের একটি মেয়ে সন্তান রয়েছে। পারভীন সাত মাসের অন্তঃস্বত্বা ছিল। অভাবের কারণে গত তিন বছর ধরে সে পারভীনকে নিয়ে রাজনগরের চরভরাটি জমিতে বসবাস করছিল।

তিনি জানান, সাম্প্রতি খালেক একই এলাকার এক নারীর সঙ্গে পরকীয়া প্রেমে জড়িয়ে পড়ে। এ নিয়ে গত এক সপ্তাহ ধরে স্বামীর সঙ্গে পারভিনের মন মালিন্য চলছিল। বুধবার ভোর রাতের কোন এক সময় পারভীনকে নির্যাতনের পর সে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে। এরপর কাঁথা দিয়ে ঢেকে বাইরে থেকে দরজায় তালা লাগিয়ে ভাটপাড়ায় চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমানের ইটভাটায় কাজ করতে যায়।

স্থানীয় ইউপি সদস্য আজিজুল ইসলাম জানান, মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে খালেক তার স্ত্রী পারভিনকে মারপিট করে। বুধবার সকালে তাদের মেয়ে ফারজানার কান্না শুনে ঘরের তালা ভেঙে পারভীনকে কাঁথা মোড়ানো অবস্থায় দেখতে পায় প্রতিবেশীরা। পারভীনের গলায় দড়ির দাগ ছিল। পরে গ্রামবাসীরা ইটভাটা থেকে স্বামী আব্দুল খালেককে ধরে এনে পুলিশে দেয়।

আরও পড়ুন : নারী মাদক কারবারি গ্রেফতার

সাতক্ষীরা সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আসাদুজ্জামান বলেন, স্থানীয়দের দেয়া খবরের পর বেলা ১২টার দিকে পারভীন আক্তারের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্যে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্যে নিহত গৃহবধুর স্বামী আব্দুল খালেককে আটক করা হয়েছে।

ভয়েস টিভি/এমএইচ

Categories
সারাদেশ

ভোলায় কৃষকদের বসতঘরে আগুন

ভোলায় ভয়াবহ আগ্নিকাণ্ডে কৃষকদের পাঁচটি বসতঘর পুড়ে গেছে। এতে তাদের পাঁচ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে জানা গেছে।

২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার রাতে সদর উপজেলার ভেদুরিয়া ইউনিয়নের মৃধা বাড়িতে এ আগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

এতে কৃষক আহাদ, ইসমাইল ও জেলে জলিলের একটি করে ঘর সম্পূর্ণ পুড়ে যায়। এছাড়া আলী আহমদ ও লালু মৃধার একটি ঘর আংশিক পুড়ে যায়।

স্থানীয়রা জানায়, কৃষকদের বসত ঘরে আগুন লাগার পর তা মুহুর্তের মধ্যে চারপাশে ছড়িয়ে পড়ে। পরে ফায়ার সার্ভিসে খবর দিলে তারা ঘটনাস্থলে এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

ফায়ার সার্ভিসের স্টেশন অফিসার শফিকুল ইসলাম জানান, মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৯টার দিকে মৃধা বাড়ির একটি ঘরের বিদ্যুতের সর্টসার্কিট থেকে আগুনের সুত্রপাত। খবর পেয়ে ফায়ার সর্ভিসের তিনটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে পাঁচ লাখ টাকার ক্ষয়-ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হয়েছে।

এদিকে ক্ষতিগ্রস্থরা বসত ঘর হারিয়ে খোলা আকাশের নিচে বসবাস করছে। কিভাবে নতুন ঘর তুলবেন সে চিন্তায় দিশেহারা তারা।

আরও পড়ুন : বেইজিংয়ে বণ্যপ্রাণী খাওয়া নিষিদ্ধ

এ ব্যাপারে ভোলা সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান বলেন, উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে টিন দেয়া হবে। পরবর্তিতে তাদের আরও সহযোগিতা করা হবে।

ভয়েস টিভি/এমএইচ

Categories
সারাদেশ

সাটুরিয়ায় ভেজাল দুধ তৈরি, ব্যবসায়ীকে কারাদণ্ড

মানিকগঞ্জের সাটুরিয়া উপজেলার ফুকুরহাটি এলাকায় অভিযান চালিয়ে ২৭০ কেজি দুধসহ এক ভেজাল ব্যবসায়ীকে এক বছরের কারাদণ্ড প্রদান করেছে ভ্রাম্যমান আদালত।

২৫ নভেম্বর বুধবার সকালের দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এ অভিযান পরিচালনা করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার আশরাফুল আলম। কারাদণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি হলেন- ফুকুরহাটি গ্রামের মৃত বিশুরুদ্দিনের ছেলে আব্দুর রাজ্জাক।

তিনি আরও বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাজ্জাক নামের ওই দুধ ব্যবসায়ীকে আটক করা হয়, সে দুধের মধ্যে এরারোড ও ইকোজেড ক্যেমিকেল মিশিয়ে দুধ তৈরি করছে।

আটক করার সময় ৯ গ্যালন দুধ ও দুই কেজি এরারোড পাওডার জব্দ করা হয়েছে। নিরাপদ খাদ্য আইনের ২৫ ধারায় ওই ব্যবসায়ীকে এক বছরের কারাদণ্ড ও ভেজাল দুধগুলো নষ্ট করা হয়েছে বলেও জানান তিনি।

ভয়েসটিভি/এএস

Categories
সারাদেশ

শেরপুরে দোকানে লুটপাটের ঘটনায় মামলা

শেরপুরের বটতলা মোড়ের একটি মুদি দোকানে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর ও লুটপাটের ঘটনা ঘটেছে। ২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার সন্ধ্যায় শহরের ঢাকলহাটি এলাকার বাসিন্দা রকিব মিয়ার দোকানে ওই হামলার ঘটনা ঘটে।

ওই ঘটনায় রকিবের পিতা শফিজ উদ্দিন শহিদ বাদী হয়ে রাতেই চারজনের নামসহ অজ্ঞাতনামা আরও ১৫/২০ জনকে আসামি করে সদর থানায় মামলা দায়ের করেছেন।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, পূর্ব শত্রুতার জেরে মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে শহরের বটতলা এলাকার সিজান (১৮), সিয়াম (১৮), পারভেজ (২০), রবিনসহ (২০) অজ্ঞাতনামা আরও ১৫-২০ জন দেশিয় অস্ত্র নিয়ে রকিব মিয়ার দোকানে হামলা চালায়। এ সময় রকিবকে বেধড়ক মারধরসহ দোকানে ভাংচুর করে। পরে ক্যাশবাক্স থেকে প্রায় ১৬ হাজার টাকা নিয়ে তারা পালিয়ে যায়।

আরও পড়ুন : হঠাৎ কেন ভুতুড়ে বিদ্যুৎ বিল?

এ ব্যাপারে সদর থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ আব্দুল্লাহ আল মামুন জানান, ওই ঘটনায় সদর থানার একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এ বিষয়ে তদন্ত চলছে এবং আসামিদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যহত আছে।

ভয়েস টিভি/এমএইচ

Categories
সারাদেশ

পটিয়ায় ৬ হাজার ইয়াবাসহ দুই জন গ্রেফতার

অভিনব কায়দায় মোটরসাইকেলের চেচিসসহ বিভিন্ন অংশে সুকৌশলে লুকিয়ে পাচারের প্রচেষ্টাকালে চট্টগ্রামের পটিয়ায় অভিযান চালিয়ে প্রায় ছয় হাজার ইয়াবাসহ দুজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। ২৪ নভেম্বর মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পটিয়া থানা পুলিশের একটি টিম চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের কমল মুন্সির হাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে।

বিষয়টি ভয়েস টেলিভিশনকে নিশ্চিত করেছেন পটিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তারিক রহমান।

তিনি জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পটিয়া থানা পুলিশের একটি টিম চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের কমল মুন্সির হাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে কক্সবাজার থেকে ছেড়ে আসা চট্টগ্রামগামী দুটি মোটরসাইকেল আরোহীকে তল্লাশি করে তাদের আটক করা হয়। পরে তাদের দেওয়া তথ্য মতে, মোটরসাইকেলের চেসিসসহ বিভিন্ন অংশে লুকানো পাঁচ হাজার ৮৮০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত মো. রুবেল (২৭) চট্টগ্রামের ভূজপুর থানার হেঁয়াকোবাজার এলাকার আবুল বশরের পুত্র। অন্যজন ওসমান গণি (৪৫) লক্ষ্মীপুর জেলার কমলনগর থানার মুজিবুল্লার পুত্র।

পটিয়া থানার ওসি রেজাউল করিম মজুমদার জানান, গ্রেফতারদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ ও দমন আইনে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ভয়েসটিভি/এএস